ঢাকা: বিএনপির নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের শীর্ষ নেতা ও বাংলাদেশ কল্যাণ পার্টির মহাসচিব এম এম আমিনুর রহমানকে চার দিনের রিমান্ড দিয়েছেন আদালত।

শনিবার বিকালে গত ২০১৫ সালের ১৬ ফেব্রুয়ারি নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খানের মিছিলে বোমা হামলার মামলায় মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ও গুলশান থানার পরিদর্শক জিহাদ হোসেন ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করলে ঢাকা মহানগর হাকিম দেবব্রত বিশ্বাস এ আদেশ দেন।

ঢাকার অপরাধ, তথ্য ও প্রসিকিউশন বিভাগের উপ কমিশনার আনিসুর রহমান জানান, আজ ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিমের আদালতে কল্যাণ পার্টির মহাসচিব এম এম আমিনুর রহমানকে নৌপরিবহন মন্ত্রীর মিছিলে বোমা হামলার মামলায় গ্রেপ্তার দেখিয়ে ১০ দিন রিমান্ডে নেওয়ার আবেদন করে। আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বিচারক এ আদেশ দেন।

অপরদিকে, আসামিপক্ষের আইনজীবী মোহাম্মদ আবদুর রউফ জামিনের আবেদন করেন। শুনানি শেষে আদালত জামিন আবেদন খারিজ করে আমিনুর রহমানের চার দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এর আগে নিখোঁজের চার মাস পর শনিবার আমিনুরকে ঢাকা মহানগর হাকিম আদালতে হাজির করে নৌপরিবহন মন্ত্রীর মিছিলে হামলার মামলায় ১০ দিনের রিমান্ড চায় পুলিশ। এ ঘটনায় দায়ের করা মামলায় আমিনুরকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

শুক্রবার রাত পৌনে ১২টার দিকে রাজধানীর শাহজাদপুর এলাকা থেকে কল্যাণ পার্টির মহাসচিব এম এম আমিনুর রহমানকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে জানান ঢাকা মহানগর (উত্তর) ডিবি পুলিশের অতিরিক্ত উপকমিশনার (এডিসি) সাজাহান সাজু।

প্রসঙ্গত, গত ২৭ অগাস্ট রাতে ঢাকার নয়া পল্টনের বাসা থেকে সাভারে নিজ বাড়িতে যাওয়ার পথে নিখোঁজ হন কল্যাণ পার্টির মহাসচিব আমিনুর রহমান। এর পরে মোবাইল ফোন ট্র্যাক করে গতকাল শুক্রবার রাত পৌনে ১২টার দিকে ঢাকার শাহজাদপুরে প্রগতি সরণিতে আমিনুরের অবস্থান শনাক্ত করে পুলিশ তাকে উদ্ধার করে।

মামলার নথি থেকে জানা যায়, ২০১৫ সালের ১৬ ফেব্রুয়ারি খালেদা জিয়ার গুলশান কার্যালয় ঘেরাও কর্মসূচি পালনের জন্য গুলশানে সমবেত হন মুক্তিযোদ্ধা পরিষদের নেতাকর্মীরা। সেখানে তাঁরা একটি সমাবেশ করেন। সমাবেশ শেষে ২০ থেকে ৩০ হাজার সাধারণ মানুষ নৌপরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খানের নেতৃত্বে খালেদা জিয়ার গুলশান কার্যালয় ঘেরাও করার উদ্দেশে রওনা হলে মিছিলের ওপর বোমা নিক্ষেপ করা হয়। এ ঘটনায় ঢাকা যানবাহন ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক ইসমাইল হোসেন বাচ্চু বাদী হয়ে বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াসহ ১৪ জনের বিরুদ্ধে গুলশান থানায় মামলা দায়ের করেন। সেই মামলায় আজ কল্যাণ পার্টির মহাসচিব এম এম আমিনুর রহমানকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে।

এর আগে ডিবির উত্তর বিভাগের দায়িত্বে থাকা অতিরিক্ত উপমহাপরিদর্শক শেখ নাজমুল আলম বলেন, আমিনুরের সন্ধানে আমরা অনেক দিন ধরে কাজ করছিলাম। হঠাৎ গতকাল দেখি, তার মোবাইল ফোনটি সচল। তারপর তাকে আমরা উদ্ধার করি। একটি মামলায় তাকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে। আমিনুর রহমান ১১০ দিন নিখোঁজ ছিলেন।

উল্লেখ, এর আগে গত বৃহস্পতিবার রাতে নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোবাশ্বার হাসান সিজার ফিরে এসেছেন। এদিন দিবাগত রাত ১টার দিকে এক মাস ১৪ দিন ‘নিখোঁজ’ থাকার পর রাজধানীর দক্ষিণ বনশ্রীর বাসায় ফিরে আসেন তিনি। সিজারের বোন তামান্না তাসনিম সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে এক পোস্টে জানিয়েছেন, আল্লাহ তায়ালার অশেষ রহমতে গতকাল দিবাগত রাত ১টায় আমার ভাইয়া সুস্থ অবস্থায় বাসায় ফিরেছে! গত ৮ নভেম্বর সকাল ৭টার দিকে বাসা থেকে বের হন সিজার। পরে নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ে গিয়ে ক্লাস নেন তিনি। বিকেল থেকে তার মুঠোফোন বন্ধ পাওয়া যায়। এর পর থেকেই তিনি নিখোঁজ ছিলেন। এ বিষয়ে রাতেই থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন সিজারের বাবা মোতাহের হোসেন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগ থেকে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর সম্পন্ন করে বিদেশে উচ্চতর ডিগ্রি নেন সিজার। দেশে ফিরে তিনি অধ্যাপনা ও গবেষণার কাজে নিয়োজিত ছিলেন।

এর আগে পূর্বপশ্চিম-এর সাংবাদিক উৎপল দাস ৭০ দিন নিখোঁজ থাকার পর গত মঙ্গলবার রাতে ফিরেছেন। রাত পৌনে ১২ টার দিকে তাকে নারায়ণগঞ্জের ভুলতা এলাকা থেকে পাওয়া গেছে বলে পুলিশ ও তার সহকর্মীরা নিশ্চিত করেছেন। তবে

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here